ঢাকা ০৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩
সংবাদ শিরোনাম
আক্কেলপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কলেরা স্যালাইন সংকট ১০০ মহাসড়ক উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী যোগ্য হিসেবেই বিশ্বকাপ জিতেছে মেসি : পেলে আক্কেলপুরে বর্ণাঢ্য আয়োজনে মহান বিজয় দিবস পালন সভাপতি না করায় ক্ষোভে মাহফিল পন্ড করতে ছিটিয়ে দেওয়া হয়েছে পায়খানা আক্কেলপুরে বাস চাপায় সেনা সদস্য নিহত গোলাপবাগ মাঠ রাতেই ভরে গেছে স্লোগানে মুখর পুতিনের ফের 'হুঁশিয়ারি' ইউক্রেনকে ঢাকা-সিলেট হাইওয়ে ৬ লেন হচ্ছে আপিল বিভাগে ৩ বিচারপতি নিয়োগ

সভাপতি না করায় ক্ষোভে মাহফিল পন্ড করতে ছিটিয়ে দেওয়া হয়েছে পায়খানা

#

মোঃ সোহাগ হোসেন, আক্কেলপুর

১৪ ডিসেম্বর, ২০২২,  9:25 PM

news image

মাহফিলের সভাপতি না করায় মাহফিল বন্ধ করতে মাহফিলে পায়খানা ছিটানোর অপরাধে গ্রামবাসীর হাতে আটক দুই যুবক

মোঃ সোহাগ হোসেন আক্কেলপুর(জয়পুরহাট) প্রতিনিধি: জয়পুরহাটের আক্কেলপুরে ইসলামী মাহফিলে পায়খানা ছিটানোর অভিযোগে দুই যুবককে আটক করেছে স্থানীয়রা। ঘটনাটি উপজেলার সোনামুখী ইউনিয়নের রামশালা হাফেজিয়া মাদরাসায় ঘটেছে। মাহফিল বন্ধ করতে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সোলায়মান আলীর ছেলে সিহাবের কথায় পায়খানা ছিটিয়ে দেওয়ার অভিযোগ স্থানীয়দের। আটককৃতরা হলেন ওই ইউনিয়নের হাজরাপাড়া গ্রামের আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে রেজাউল ইসলাম (২১) এবং একই গ্রামের আলী হোসেনের ছেলে আরিয়ান আহমেদ রকেট (১৭)। সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গিয়ে জানাগেছে, গত ১৩ ডিসেম্বর উপজেলার সোনামুখী ইউনিয়নের রামশালা হাফেজিয়া মাদরাসার উদ্দ্যোগে ইসলামী মাহফিলের আয়োজন করা হয়। চলছিল ইসলামি মাহফিল। হঠাৎ তিন যুবক রাত প্রায় সাড়ে নয়টার দিকে মাহফিল বন্ধ করতে প্যান্ডেলের মধ্যে মুসল্লিদের উদ্দেশ্য করে পায়খানা ছিটিয়ে দেয়। এসময় ছড়িয়ে পরে দূর্গন্ধ। বিষয়টি অনুমান হলে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়। এক জন দৌড়ে পালিয়ে গেলেও মুসল্লিরা রেজাউল ইসলাম এবং আরিয়ান আহমেদ রকেটকে আটক করে। পরে তারা জানায় দশ হাজার টাকার বিনিময়ে সাবেক চেয়ারম্যান সোলায়মান আলীর ছেলে সিহাব পায়খানা ছিটিয়ে দেওয়ার জন্য তাদের সাথে চুক্তি করে। তার কথায় তারা এমন কাজ করেছে। গ্রামবাসীর হাতে আটক দুই যুবক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ‘সাবেক চেয়ারম্যান সোলায়মান আলীর ছেলে সিহাবের কথায় দশ হাজার টাকার বিনিময়ে আমরা এই কাজ করেছি’। স্থানীয় গ্রামের বাসিন্দা শহীদুল ইসলাম বলেন, ‘এটি একটি ন্যাক্কারজনক কাজ। সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সোলায়মান আলীকে মাহফিলের সভাপতি না করায় তার ছেলে সিহাব টাকার বিনিময়ে দুই যুবককে দিয়ে এই কাজটি করিয়েছেন’। মাহফিলের আয়োজনকারী মাদরাসা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আনিছুর রহমান বলেন, ‘মাহফিল চলাকালী সময়ে ওই দুই যুবক প্যান্ডেলের ভিতরে প্রবেশ করে মাহফিল বন্ধ করতে পায়খানা ছিটিয়ে দেয়। দশ হাজার টাকার বিনিময়ে সাবেক চেয়ারম্যান সোলায়মান আলীর ছেলের কথায় এই কাজ করেছে তারা’। এ ঘটনায় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সোলায়মান আলী এবং তার ছেলে সিহাবের সাথে একাধিকবার যোগাযোগ করেও তাদের পাওয়া যায়নি। সোনামুখী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও মাহফিলের সভাপতি ডি.এম রাহেল ইমাম বলেন, ‘ওই দুই ছেলে মাহফিলের পূর্ব দিক থেকে প্রবেশ করে একটি শপিং ব্যাগে পায়খানা নিয়ে এসে মাহফিলের ভিতরে ছিটিয়ে দেয়। মুসল্লিরা ধাওয়া করে তাদের আটক করে। পরে তাদের থানা পুলিশে সোপর্দ্দ করা হয়’। আক্কেলপুর থানার ওসি আবু বক্কর সিদ্দীক বলেন, ‘এ ঘটনায় দুই যুবককে স্থানীয়রা থানায় সোপর্দ্দ করেছে। এখন পর্যন্ত কোন অভিযোগ হয়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে’। 

logo

প্রকাশক ও সম্পাদকঃ শেখ আজমল হোসেন